শিরোনাম:
●   লালমোহনে আমেজ-শঙ্কার ইউপি নির্বাচন।।লালমোহন বিডিনিউজ ●   লালমোহনে ইউপি নির্বাচনের প্রার্থীদের সাথে পুলিশের মতবিনিময় ●   লালমোহন পৌর মেয়রের হোয়াটসঅ্যাপ হ্যাক করে টাকা দাবি।।লালমোহন বিডিনিউজ ●   লালমোহনে সরকারি গাছ কর্তনের অভিযোগ || লালমোহন বিডিনিউজ ●   দ্বাদশ জাতীয় সংসদের পানি সম্পদ মন্ত্রনালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির বৈঠক অনুষ্ঠিত।।লালমোহন বিডিনিউজ ●   লালমোহন পশ্চিম চর উমেদ ইউপি নির্বাচনে গণসংযোগে ব্যস্ত চেয়ারম্যান প্রার্থী।।লালমোহন বিডিনিউজ ●   লালমোহনে পাঁচ অবৈধ ডায়াগনস্টিক সেন্টার ও হসপিটাল সিলগালা।।লালমোহন বিডিনিউজ ●   লালমোহনে এক কেজি গাঁজা সহ আটক ১।।লালমোহন বিডিনিউজ ●   স্ট্যান্ড নেই, সড়ক ইজারা দিচ্ছে লালমোহন পৌরসভা!।। লালমোহন বিডিনিউজ ●   এমবিবিএস পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ায় লালমোহনে শিক্ষার্থীকে সংবর্ধনা।।লালমোহন বিডিনিউজ
ঢাকা, মঙ্গলবার, ৫ মার্চ ২০২৪, ২১ ফাল্গুন ১৪৩০

Lalmohan BD News
বৃহস্পতিবার, ৯ নভেম্বর ২০২৩
প্রথম পাতা » অপরাধ | জেলার খবর | বরিশাল | বিভাগের খবর | লালমোহন | শিরোনাম | সর্বশেষ » লালমোহনে জমি জবরদখল চেষ্টার অভিযোগ || লালমোহন বিডিনিউজ
প্রথম পাতা » অপরাধ | জেলার খবর | বরিশাল | বিভাগের খবর | লালমোহন | শিরোনাম | সর্বশেষ » লালমোহনে জমি জবরদখল চেষ্টার অভিযোগ || লালমোহন বিডিনিউজ
২১০ বার পঠিত
বৃহস্পতিবার, ৯ নভেম্বর ২০২৩
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

লালমোহনে জমি জবরদখল চেষ্টার অভিযোগ || লালমোহন বিডিনিউজ

---লালমোহন ভোলা প্রতিনিধি : ভোলার লালমোহন উপজেলার ফরাজগঞ্জ ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ড সাদাপুল এলাকায় দুটি দোকান ভিটা জবরদখল চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে।
এ ঘটনার প্রতিকার পেতে লালমোহন থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন ওই এলাকার ভুক্তভোগী মোঃ মিজানুর রহমান।
অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার মহেষখালী মৌজার ১৫৮৭নং খতিয়ানে ৩৮১২ ও ৩৮১৩ নং দাগে সাব কবলা রেজিস্ট্রি দলিল মূলে ও দখলদার হিসেবে মো: মিজানুর রহমান ও তার বাবা মে: নুরুল আমিনের মালিকানাধীন ভিটি ও বাগানের ১৭ শতাংশ জমি জবরদখলের পায়তারা করছে একই এলাকার মৃত আবদুল জব্বারের ছেলে মো: সবুজ, মৃত হাবিবুর রহমানের ছেলে নেজামুল ও আহম্মদ। এতে বাঁধা দিতে গেলে জবরদখলকারীরা মো: মিজানুর রহমান কে মারধর করতে উদ্যত হয় বলেও অভিযোগে উল্লেখ করা হয়।
এ জমি নিয়ে বিজ্ঞ আদালতে মামলা করলে বিজ্ঞ আদালত হতে আমাদের নামে চুড়ান্ত ডিক্রি জারি হয়। এরপরও আমাদের জমি জবরদখলকারীরা দখলের চেষ্টায় লিপ্ত রয়েছে বলে অভিযোগ করেন মোঃ মিজানুর রহমান।
দোকান ভিটা জবরদখল চেষ্টার অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে মোঃ সবুজ বলেন, জমিটি আমি মাজেদ মাস্টারের ছেলের কাছ থেকে ক্রয় করেছি। এজন্যই সেখানে ঘর নির্মাণের চেষ্টা করেছিলাম।
এদিকে জবরদখলের অভিযোগ পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন বলে জানান লালমোহন থানার এসআই উত্তম কুমার ভট্টাচার্য। তিনি বলেন, সবুজদের কে ঘর উত্তোলনে বারণ করা হয়েছে।
এদিকে জবরদখলকারীদের জবরদখল ও হুমকি থেকে বাঁচতে প্রশাসনের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন ভুক্তভোগী মোঃ মিজানুর রহমান ও তার পরিবার।



আর্কাইভ

পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)