শিরোনাম:
●   লালমোহনে বিদ্যুস্পৃষ্টে আলিম পরীক্ষার্থীর মৃত্যু ●   লালমোহনে এক কেজি গাঁজাসহ মাদক কারবারি আটক ●   এমপি শাওনের বাবার রুহের মাগফেরাত কামনায় মসজিদে মসজিদে দোয়া ●   লালমোহনের কালমা ইউনিয়নের উপনির্বাচনের তফসিল ঘোষণা ●   শেখ হাসিনা কৃষি বান্ধব প্রধানমন্ত্রী : এমপি শাওন ●   লালমোহনে জিপিএ-৫ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা ●   লালমোহনে জমিসহ ঘর পেলো ১৩৮ গৃহহীন পরিবার ●   ঢাকায় নিরাপদ পরিবেশ চাই এর মানববন্ধন ●   লালমোহনে ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্তদের মধ্যে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করলেন এমপি শাওন।।লালমোহন বিডিনিউজ ●   ঘূর্ণিঝড় রেমালের তান্ডবে দৌলতখানে মৃত্যু ১।।লালমোহন বিডিনিউজ
ঢাকা, রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ২৯ আষাঢ় ১৪৩১

Lalmohan BD News
শনিবার, ৯ মার্চ ২০২৪
প্রথম পাতা » অপরাধ | জেলার খবর | বরিশাল | বিভাগের খবর | লালমোহন | শিরোনাম | সর্বশেষ » সাকিন লঞ্চের তালাবদ্ধ কেবিন থেকে যাত্রীর মালামাল চুরি!।।লালমোহন বিডিনিউজ
প্রথম পাতা » অপরাধ | জেলার খবর | বরিশাল | বিভাগের খবর | লালমোহন | শিরোনাম | সর্বশেষ » সাকিন লঞ্চের তালাবদ্ধ কেবিন থেকে যাত্রীর মালামাল চুরি!।।লালমোহন বিডিনিউজ
৩৬৯ বার পঠিত
শনিবার, ৯ মার্চ ২০২৪
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

সাকিন লঞ্চের তালাবদ্ধ কেবিন থেকে যাত্রীর মালামাল চুরি!।।লালমোহন বিডিনিউজ

---লালমোহন ভোলা প্রতিনিধি : লঞ্চের তালাবদ্ধ কেবিন থেকে যাত্রীর মালামাল চুরির ঘটনা ঘটেছে।

 

 

 

 

গতকাল শুক্রবার বিকেলে ঢাকা টু নাজিরপুর, ভায়া লালমোহনগামী এমভি প্রিন্স সাকিন লঞ্চে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় হতবাক হয়ে গেছেন ভুক্তভোগী যাত্রী।

ওই যাত্রী নাম মজিবর রহমান, তিনি লালমোহন উপজেলার কালমা ইউনিয়নের পাঁচ নাম্বার ওয়ার্ড চর ছকিনা গ্রামের বাসিন্দা।

স্ত্রীকে শুক্রবার বিকেলে এমভি প্রিন্স সাকিন লঞ্চযোগে ঢাকা থেকে লালমোহনের উদ্দেশ্যে রওয়ানা দেই। এ সময় নির্ধারিত যাত্রী কেবিন না পেয়ে লঞ্চের তিনতলায় স্টাফ মিরাজের কেবিন ভাড়া নেই। লঞ্চ ছেড়ে দেয়ার পরে স্ত্রীকে লঞ্চের কেবিনে রেখে পানির জন্য নিচে যাই।

তিনি আরো বলেন, লঞ্চের কেবিনে তালা মেরে কাছেই একটি বসে ছিলো আমার স্ত্রী। কিছুক্ষণ পর পুনরায় কেবিনে ঢুকতে গিয়ে লাগানো তালাটিকে উল্টো করে লাগানো এবং কেবিনের জানালা সামান্য খোলা দেখতে পায় আমার স্ত্রী। পরে কেবিনে ঢুকে দেখেন, ভেতরে বড় দুইটি ব্যাগের মাঝখানে রাখা ব্যানিটি ব্যাগটি নেই।

মজিবর রহমান অভিযোগ করে বলেন, আমি এসে কেবিনের লোকদের ডেকে বিষয়টি জানাই। ব্যাগগুলো জানালা থেকে এতটা দূরে এবং জানালা এতো ছোট যে, কেউ ভিতরে না ঢুকে ব্যাগ চুরি করা অসম্ভব। তাছাড়া, লঞ্চের স্টাফদের কাছে কেবিনের তালার একাধিক চাবি রয়েছে।

তাই লঞ্চ স্টাফদের যোগসাজশে এই চুরির ঘটনা ঘটানো হয়েছে বলেও অভিযোগ করেন মজিবর।

মজিবর রহমান বলেন, ব্যানিটি ব্যাগে স্বর্ণের কানের দুল, গলার চেইন, ঝুমকা, কানের রিং, নাকফুলসহ প্রায় দেড় ভরি স্বর্ণ, রুপার একজোড়া নুপুর ও নগদ সাড়ে ষোলো হাজার টাকা ছিলো। বিষয়টি রাতেই লালমোহন থানায় জানিয়েছেন বলেও জানান ভুক্তভোগী মজিবর রহমান।

এদিকে স্টাফদের যোগসাজশে চুরির অভিযোগ অস্বীকার করে সাকিন লঞ্চের স্টাফ মিরাজ বলেন, ওই কেবিনের জানাল যে পরিমাণ খোলা ছিলো, সেটুকু দিয়ে যে কেউ চুরি করতে পারে।

এ বিষয়ে জানতে সাকিন লঞ্চের ইন্সপেক্টর সফিক এর মুঠোফোনে একাধিকবার কল দিলেও রিসিভ করেননি তিনি।

এমভি প্রিন্স সাকিন লঞ্চের মালিক ফিরোজ মিয়া বলেন, সদরঘাটে এমন ঘটনা এখন অহরহ চলছে। ঘাটে থাকাকালীন যাত্রীদের অসচেতনতায় লঞ্চে এমন ঘটনা ঘটলে তার দায়ভার আমাদের নয়। তবুও লঞ্চের স্টাফরা আসলে তাদের কাছ থেকে জেনে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণের চেষ্টা করবো।

লালমোহন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এসএম মাহবুব উল আলম বলেন, বিষয়টি আমাকে জানানো হয়েছে। তবে এ ঘটনায় লিখিত অভিযোগ দেয়নি।



আর্কাইভ

পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)